August 17, 2018

এইমাত্র পাওয়া সংবাদ

কচুয়ায় সেন্ট্রাল হাসপাতালে আয়া দিয়ে সিজার করায় গর্ভবর্তীর মৃত্যু ॥ লাশের মূল্য ২লক্ষ টাকা!

mittuকচুয়া প্রতিনিধি ॥
চাঁদপুরের কচুয়া উপজেলার সেন্ট্রাল হাসপাতালে আয়া দিয়ে সিজার করায় এক গর্ভবর্তী মহিলার মৃত্যু হয়েছে। ২৮ জুলাই শুক্রবার সকালে উপজেলার সাচার বাজারে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় সাচার বাজার ব্যবসায়ী ও এলাকাবাসী বিক্ষোভ করে সেন্ট্রাল হাসপাতালে তালা ঝুলিয়ে দেয়। পরে সাচার পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রন করে।
জানা যায়, ২৭ জুলাই বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় দূর্গাপুর গ্রামের মানśান মাষ্টার তাঁর স্ত্রী ফাতেমা বেগম(৩৫) কে সিজারিং করার জন্য সাচার সেন্ট্রাল হাসপাতালে নিয়ে আসে। হাসপাতালে কোনো ডাক্তার না থাকায় ওই হাসপাতালের আয়া দিয়ে সিজার করার ফলে সন্তান প্রসব হয়। অদক্ষ ও অনভিজ্ঞ আয়া দিয়ে সিজার করার ফলে ফাতেমা বেগমের জরায়ুতে অতিরিক্ত রক্তক্ষরন হয়। ফাতেমা বেগমের অবস্থা আশংকাজনক দেখে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তাকে ঢাকা প্রেরন করে। পরে ঢাকা নেবার পথে রাতে ফাতেমা বেগম মারা যায়। হাসপাতালের কর্তৃপক্ষ ও ডাক্তারগন মৃত্যুর খবর শুনে পালিয়ে যায়। শুক্রবার সকালে তাঁর মৃত্যুর খবর শুনে এলাকাবাসী বিক্ষোভ করে।
এব্যাপারে হাসপাতাল কৃর্তপক্ষ সাংবাদিকদের সাথে কথা বলতে চাননি। ঘটনাটি ধামাচাপা দেয়ার জন্য বাদী পক্ষের সাথে আপোস হয়ে লাশের মূল্য বাবদ ২লক্ষ টাকা দেন। মান্নান মাষ্টার টাকা নিতে অপরাগ ছিলেন। জোরপূর্বক ভাবে তাকে লাশে মূল্য দেয়া হয়। এঘটনায় এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে।

About The Author

Related posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *