September 22, 2018

এইমাত্র পাওয়া সংবাদ

এবারও হলো না

প্রথম ম্যাচে হেরে সিরিজে ১-০ তে পিছিয়ে ছিmatchল টাইগাররা। সমতা ফেরাতে আজকের ম্যাচটিতে জয় ছিল অত্যাবশ্যকীয়। টসও টাইগারদের পক্ষে ছিল। কিন্তু হলো না। এ যাত্রায়ও আশাভঙ্গ হলো। শুক্রবার মাউন্ট মাঙ্গানুইতে দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টিতে টাইগারদের বিপক্ষে ৪৭ রানের জয় তুলে সিরিজ নিজেদের করে নিয়েছে স্বাগতিক নিউজিল্যান্ড।

এদিন নির্ধারিত ২০ ওভারে ৭ উইকেট হারিয়ে ১৯৫ রান সংগ্রহ করে কিউইরা। জবাবে ব্যাট করতে নেমে ১৮.১ ওভারে ১৪৮ রানে গুটিয়ে যায় বাংলাদেশের ইনিংস।

নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে এদিন দলীয় ৩৬ রানে প্রথম সারির তিন উইকেট হারিয়ে চাপে পড়ে সফররত বাংলাদেশ। তবে হাল ধরেন সাব্বির-সৌম্য। এ জুটির ৬৮ রানে ভর করে ১১ ওভারে বাংলাদেশের সংগ্রহ দাঁড়ায় ১০৪/৩। কিন্তু ১১তম ওভারে ব্যক্তিগত ৩৯ রান করে ক্যাচ আউট হন সৌম্য। অন্যদিকে ১২তম ওভারে ৩১ বলে ৪৮ রান নিয়ে অর্ধশতকের দ্বারপ্রান্ত থেকে ফিরে যান সাব্বির। এরপরে সবাই আশা-যাওয়ার মধ্যেই থাকেন। এরমধ্যে মাহমুদউল্লাহ করেন ১৯ রান। মোসাদ্দেক ১, নুরুল ১০, মর্তুজা ১ ও রুবেল ১ রান করে আউট হন।

আগের ইনিংসে ৪৬ রানে প্রথম সারির তিন ব্যাটসম্যানকে হারিয়ে চাপে পড়েছিল নিউজিল্যান্ড। তবে সেখান থেকে দলকে টেনে তোলেন কলিন মুনরো ও টম ব্রুস জুটি (১২৩ রান)। নির্ধারিত ২০ ওভারে ৭ উইকেট হারিয়ে ১৯৫ রান সংগ্রহ করে কিউইরা। ১৯৬ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে ৩৬ রানেই ইমরুল, তামিম ও সাকিবের উইকেট হারায় বাংলাদেশ। এর পর মাঠে নামেন সৌম্য ও সাব্বির।

প্রথম ওভারের চতুর্থ বলেই শূণ্য রানে ফিরে যান ইমরুল কায়েস। চতুর্থ ওভারে ব্যক্তিগত ১৩ রানে রান আউট হন তামিম। পঞ্চম ওভারের প্রথম বলে ব্যক্তিগত এক রানে ক্যাচ তুলে বিদায় নেন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান।

শুক্রবার মাউন্ট মাঙ্গানুইতে টস জিতে ফিল্ডিং বেঁছে নেন অধিনায়ক মাশরাফি। ওভারের প্রথম বলেই আঘাত হানেন নিউজিল্যান্ড শিবিরে। রানের খাতা খোলার আগেই লুক রনকি মাশরাফির বলে মোসাদ্দেক হোসেন সৈকতের তালুবন্দি হন।

এরপর কলিন মুনরো আর অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন প্রতিরোধ গড়ে তোলেন। সাকিব বল হাতে এসেই ৪২ রানের এই জুটি ভাঙেন উইলিয়ামসনকে (১২) তামিমের তালুবন্দি করে। দলীয় ৪৬ রানে মোসাদ্দেক হোসেনের বলে সরাসরি বোল্ড হন কোরি অ্যান্ডারসন চার রান করে।

এরপর মুনরো টম ব্রুসকে নিয়ে ঝড় তোলেন। একের পর এক চার-ছক্কায় নিজের শতকটিও করে নেন মুনরো। ১২৩ রানের এই জুটি ভাঙেন রুবেল হোসেন। মাত্র ৫৪ বলে সমান ৭টি করে চার-ছয়ে ১০১ রান করা মুনরোকে দলীয় ১৬৯ রানে উইকেটের পেছনে ক্যাচ দিতে বাধ্য করেন রুবেল। এক বল পরেই তিনি কলিন গ্রানড্রমিকে সরাসরি বোল্ড করেন। শেষ ওভারে বল হাতে এসে প্রথম বলেই নিসামকে ফিরিয়ে দেন রুবেল। ওভারের পঞ্চম বলে রান আউটের ফাঁদে পড়েন সান্টনার।

প্রথম ম্যাচের দল নিয়েই মাঠে নেমেছে টাইগাররা। নেপিয়ারে প্রথম ম্যাচ জিতে তিন ম্যাচের সিরিজে ১-০ তে এগিয়ে রয়েছে স্বাগতিক নিউজিল্যান্ড। আগামী ৮ জানুয়ারি মাউন্ট মাঙ্গানুইতেই হবে শেষ টি ২০।

 

About The Author

Related posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *